একটি নিরীহ পরিবার ভিটে ছাড়া প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা

0
158

মহেশপুর (ঝিনাইদহ) অফিস ঃ ঝিনাইদহের গান্না ইউনিয়নের কাশিমপুর গ্রামে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধে প্রতিপক্ষের দাবানলের শিকার হয়ে একটি নিরীহ পরিবার ভিটেবাড়ি ছেড়ে বিভিন্ন স্থানে পালিয়ে বেড়াচ্ছে। ভুক্তভোগী পরিবার এই ঘটনায় একাধিক মামলা দায়ের করেও আশান্বরুপ ফল না পেয়ে প্রধানমন্ত্রীসহ প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।
ভূক্তভোগী আমিরুল ইসলাম জানান, আমি একজন নিরীহ ব্যক্তি। পরের ক্ষেতে কৃষি কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করি। আমার চাচাতো ভাই শফি উদ্দিন আমার আপন ভাই সেজে জাল দলিল তৈরী করে আমার পিতার নামীয় ৫১নং আটলে মৌজার ১৮৮নং দাগের ৩৯নং খতিয়ানের ২৩ শতক জমি রেজিষ্ট্রি করে নেয়। দীর্ঘদিন ধরে আমি ওই জমি চাষাবাদ করে আসছিলাম। সম্প্রতি শফি ওই জাল দলিলের মাধ্যমে জমিটি তার ভাইপো আকিবের নিকট বিক্রি করে দেয়। আকিব সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে আমার ও আমার ছেলে রাজুকে সন্ত্রাসী দিয়ে বেধড়ক মারপিট করে গুরুতর জখম করে ওই জমি জোরপূর্বক দখল করে নেয়। এলাকার জহিরের নেতৃত্বে আকিব তার সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে আমাকে হত্যার হুমকি দিলে আমি এলাকা ছাড়তে বাধ্য হই। এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দিয়েও কোন প্রতিকার পায়নি। পরে আদালতে মামলা করলে আদালত ঝিনাইদহ সদর থানাকে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহনের নির্দেশ দেয়। ঝিনাইদ সদর থানা বিষয়টি তদন্তের জন্য বেতায় ক্যাম্পের আইসিকে তদন্তের জন্য গত ২ মাসে কোন অগ্রগতি নেই। এ বিষয়ে ইক্ত ক্যাম্পের আইসি রফিকুলের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন তদন্তের কাজ চলছে। সময় মত আদালতে তদন্ত রিপোর্ট দেওয়া হবে। বর্তমানে আমিরুল ইসলাম পরিবার নিয়ে বিভিন্ন স্থানে পালিয়ে খেয়ে-না খেয়ে জীবন যাপন করছে। সন্ত্রাসী জহির এলাকায় রাম রাজত্ব কায়েম করেছে। তার অত্যাচারে এলাকার অনেক নিরীহ মানুষ নির্যাতনের শিকার হয়েছে। ভুক্তভোগী আমিরুল ইসলাম পরিবার নিয়ে বাঁচার জন্য সরকারের উপর মহলের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here