কলারোয়ায় করোনা পজিটিভ সকলেই দৃশ্যমান ভালো আছেন

0
382

এমএ সাজেদ, কলারোয়া(সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি : কলারোয়ায় করোনা পজিটিভ হওয়া ৭ ব্যক্তির সকলেই সুস্থ ও ভালো আছেন। তবে নির্দিষ্ট সময় অতিক্রান্ত না হওয়া পর্যন্ত অফিসিয়ালি এদের সুস্থ ও করোনামুক্ত বলার সময় এখনো আসেনি। দৃশ্যমান প্রত্যেকে সুস্থ ও স্বাভাবিক আছেন বলে জানা গেছে। ইতোমধ্যে প্রথম করোনা আক্রান্ত উপজেলার চন্দনপুর ইউনিয়নের দাঁড়কি গ্রামের মাজেদুল (৩৬) ও তাঁর স্ত্রী মিম (২২) বর্তমানে সুস্থ ও করোনা উপসর্গবিহিন অবস্থায় রয়েছেন বলে ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম মনি শুক্রবার জানান। তিনি জানান, গত ৪ দিন আগে এ দু’জনের নমুনা নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তাঁর বিশ্বাস, রিপোর্ট ভালো আসবে। আর হিজলদি গ্রামের ইব্রাহিম (২২) ভালো ও সুস্থ আছেন। হোম আইসোলেশনে তিনি গান গেয়ে ও শুনে সময় কাটাচ্ছেন বলে ইউপি চেয়ারম্যান জানান। ইব্রাহিমের নমুনা শুক্রবার সংগ্রহ করার কথা। এদিকে একই ইউনিয়নের করোনা পজিটিভ নাথপুর গ্রামের পল্লী চিকিৎসক আবুল কালাম ওরফে সালেহ (৫২), তাঁর স্ত্রী সালেহা (৪০) ও ছেলে খালিদুর (২২) বর্তমানে ভালো ও সুস্থ আছেন। এই পরিবারের ৩ জনের মধ্যে আবুল কালাম ওরফে সালেহ একটু অসুস্থ হয়ে পড়লেও স্ত্রী ও ছেলে পজিটিভ হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত সুস্থ আছেন। গত দু’দিন আবুল কালাম ওরফে সালেহও সুস্থ বোধ করছেন। এখন তিনি ঠিকমতো খেতে পারছেন। সেলফোনে তিনি জানান, আল্লাহ তাকে সুস্থ করে তুলেছেন। আর গত ২ জুন করোনা পজিটিভ হওয়া উপজেলার জালালাবাদ ইউনিয়নের সিংহলাল গ্রামের নায়ারণগঞ্জ ফেরত যুবক ইমরান (২৭) সুস্থ আছেন বলে জানা গেছে। কলারোয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ইউএইচ এন্ড এফপিও ডা: জিয়াউর রহমান জানান, উপজেলার করোনা আক্রান্ত সকলেই ভালো আছেন। অনেকেই সুস্থ। কিন্তু তাদের ফলোআপ রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত কিছু বলা যাচ্ছে না। প্রসঙ্গত: উল্লেখ্য, কলারোয়ায় গত ১৬ মে মাজেদুল, ২০ মে তাঁর স্ত্রী মিম, ২২ মে ইব্রাহিম, ২৪ মে আবুল কালাম ওরফে সালেহ, ২৭ মে তাঁর স্ত্রী সালেহা ও ছেলে খালিদুর এবং সর্বশেষ ২ জুন ইমরান করোনা পজিটিভ হন। এদের মধ্যে প্রথম ৬ জনের বাড়ি চন্দনপুর ইউনিয়নের পাশাপাশি গ্রামে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here