যশোরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষনের অভিযোগে চাচাতো ভাই আটক

0
51

যশোর অফিস : যশোরের চৌগাছা রঘুনাথপুর দাখিল মাদ্রাসার ৮ম শ্রেনীর ছাত্রীকে ধর্ষনের অভিযোগে চাচাতো ভাই একই উপজেলার ইমামুল হক ও সান্তনা খাতুনের ছেলে নাজমুল তরফদারকে (২৫) পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) সদস্যরা গ্রেফতার করেছে। এর আগে ধর্ষনের ঘটনায় ধর্ষিতা স্কুল ছাত্রীর মা  নাজমুলকে আসামি করে মামলা করেন। আটক নাজমুলকে আদালতে সোপর্দ করা হলে সে ধর্ষনের দায় স্বীকার করে।
মামলায় ধর্ষিতার মা বলেছেন, গার্মেন্টসে চাকুরির সুবাদে তিনি ঢাকায় থাকেন। পিতা বিদেশ থাকে। ঘটনার স্বীকার মাদ্রাসা ছাত্রীর পিতা মাতা বাড়ি না থাকায় আসামি নাজমুল ২২ সালের ২০ আগস্ট সকালে মাদ্রাসা ছাত্রীর বাড়িতে জোর পূর্বক ধর্ষন করে। এরপর নাজমুল ২২ সালের ২০ আগস্ট থেকে ২৩ সালের ১২ এপ্রিল পর্যন্ত মাদ্রাসা ছাত্রীকে বিভিন্ন সময়ে একাধিকবার ধর্ষন করে। মাদ্রাসা ছাত্রী তার মাকে শারীরিক অসুস্থতার কথা জানায়। মাদ্রাসা ছাত্রীর মা হাসপাতালে নেয়ার পর জানতে পারেন তার মেয়ে ৭ মাসের অন্তসত্তা। মাদ্রাসা ছাত্রীর মা ঘটনাটি পিবিআইকে জানালে আইন ব্যবস্তা গ্রহনের জন্র বলা হয়। মাদ্রাসা ছাত্রীর মা  বৃহস্পতিবার (১ জুন) চৌগাছা থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেন। মামলার পর তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআইয়ের এস আই সঞ্জয় বিশ্বাস ৩১ মে দিবাগত গভীর রাতে চৌগাচার বাড়ি থেকে নাজমুলকে গ্রেফতার করে। আটক নাজমুল পুলিশের প্রাথমিক জিজ্হাসাবাদে স্বীকার করে সে তার চাচাতো বোনকে ৭/৮ বার ধর্ষন করে। বৃহস্পতিবার নাজমুলকে জুডিশিয়াল ম্যাজিট্রেট অবন্তিকা রায়ের আদালতে সোপর্দ করা হলে সে ধর্ষনের দায় স্বীকার করে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি প্রদান করে। মাদ্রাসা ছাত্রীকে জেনারেল হাসপতালে ভর্তি করা হয়েছে। #

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here